স্বৈরাচারী শাসন থেকে মুক্তি পেতে আন্দোলন করে বিএনপি সরকার প্রতিষ্ঠা করতে হবে : টুকু

নিউজ দর্পণ, টাঙ্গাইল: বর্তমান সরকারের সময়ে দেশে আইনের শাসন নেই বলে মন্তব্য করেছেন জাতীয়তাবাদী যুবদলের সাধারণ সম্পাদক সুলতান সালাউদ্দিন টুকু। তিনি বলেন, ‘দেশে অস্বাভাবিক হারে গুম, খুন, ধর্ষণ ও লুটপাট বেড়ে গেছে। সরকারের এ স্বৈরাচারী শাসন থেকে মুক্তি পেতে রাজপথের আন্দোলনের মাধ্যমে বিএনপির সরকার প্রতিষ্ঠা করতে হবে।’

বুধবার (৯ সেপ্টেম্বর) টাঙ্গাইলে ‘মহিলা দলের ৪২তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর’ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন। জেলা মহিলা দলের উদ্যোগে বেলা ১১টায় স্থানীয় সিলমী কমিউনিটি সেন্টারে আলোচনা সভা ও দোয়া অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

জেলা মহিলা দলের সভাপতি নিলুফার ইয়াসমিন খানের সভাপতিত্বে এবং সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট মমতাজ করিমের সঞ্চালনায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী যুবদল কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির সাধারণ সম্পাদক সুলতান সালাউদ্দিন টুকু। জাতীয় ও দলীয় পতাকা উত্তোলন এবং শান্তির প্রতীক কবুতর উড়িয়ে প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর কার্যক্রম শুরু করা হয়।
প্রধান অতিথি সুলতান সালাউদ্দিন টুকু তার বক্তব্যের শুরুতে বিএনপি’র প্রতিষ্ঠাতা শহীদ রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে মহিলা দলের ৪২তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর অনুষ্ঠান শুরু করেন। পরে উপস্থিত জেলা মহিলা দলের সকল পর্যায়ের নেতাকর্মীকে দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার ও দলের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের পক্ষ থেকে শুভেচ্ছা জানান।

প্রধান অতিথি তার বক্তব্যে বলেন, ‘দেশের সার্বিক উন্নয়নে সম্পৃক্ত হয়ে দেশ গঠনে মহিলারা যাতে অবদান রাখতে পারে এই আশা নিয়েই স্বাধীনতার ঘোষক, বহুদলীয় গণতন্ত্রের প্রবক্তা শহীদ রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমান মহিলা দল গঠন করেছিলেন।’

তিনি বলেন, ‘দেশে আজ বিনা ভোটের অবৈধ ও স্বৈরাচার সরকার জগদ্দল পাথরের মতো ক্ষমতা কুক্ষিগত করে রেখেছে। সাবেক প্রধানমন্ত্রী দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে প্রতিহিংসামূলক মিথ্যা মামলায় ফরমাইশি রায়ে দুই বছরের অধিক সময় রাজনীতি থেকে দূরে রাখার চেষ্টা করেছে। পাশাপাশি দলের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান দেশনায়ক তারেক রহমানের বিরুদ্ধে দেশে ফিরতে বাধা দিচ্ছে সরকার।’

তিরি আরও বলেন, ‘মহামারি করোনা ও বন্যায় দেশের অধিকাংশ মানুষ যখন অসহায় তখন সরকারি দলের নেতাকর্মীরা ব্যস্ত লুটপাটে। হত্যা,খুন, মামলা, হামলা ও আটকের মাধ্যমে বিএনপিসহ অঙ্গ ও সহযোগী নেতাকর্মীদের জীবন দুর্বিসহ করে তুলেছে। শুধু জাতীয়তাবাদী আর্দশের নেতাকর্মীরা নয় দেশের জনগণ আজ এই স্বৈরাচারী সরকারের হাত থেকে মুক্তি চায়।’

অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য রাখেন জেলা বিএনপি’র ভারপ্রাপ্ত সভাপতি আলহাজ ছাইদুল হক ছাদু, বিশেষ অতিথি জেলা বিএনপি’র সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট ফরহাদ ইকবাল, সহ সভাপতি আতাউর রহমান জিন্নাহ, জিয়াউল হক শাহীন, যুগ্ম সম্পাদক আবুল কাসেম, খন্দকার রাসেদুল আলম রাসেদ, মেহেদী আলিম,সাংগঠনিক ও জেলা যুবদলের আহবায়ক আশরাফ পাহেলী, জেলা বিএনপির কোষাধ্যক্ষ ও কেন্দ্রীয় কৃষক দলের সদস্য মো. মাইনুল ইসলাম, প্রচার ও জেলা শ্রমিক দলের সাধারণ সম্পাদক এ কে এম মনিরুল হক ভিপি মুনীর, কৃষক দলের সভাপতি দিপু হায়দার খান, জেলা ছাত্রদলের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি সালেহ্ মো. শাফি ইথেন, সাধারণ সম্পাদক নুরুল ইসলাম, মৎস্যজীবী দলের সাধারণ সম্পাদক মোস্তফা কামাল, ওলামা দলের আহবায়ক আবদুল্লাহ্ মামুন, জেলা মহিলা দলের সিনিয়র সহ সভানেত্রী নাজমা আক্তারসহ জেলা ও উপজেলার মহিলা দলের নেতারা।

এ সময় জেলা ও পৌর বিএনপি, যুবদল, ছাত্রদল, শ্রমিক দল, কৃষক দল, জাসাস, মৎস্যজীবী দল, ওলামা দল ও মহিলা দলের জেলাসহ সকল উপজেলা এবং পৌর কমিটির নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *