বিএনপি জনগণের মন জয় করতে পারেনি: কাদের

নিউজ দর্পণ, ঢাকা: সদ্য অনুষ্ঠিত চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন (চসিক) নির্বাচনে শেষ পর্যন্ত মাঠে থাকায় বিএনপিকে ধন্যবাদ জানিয়ে আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, ‘অতীতের মতো এবার তারা মাঝপথ থেকে সরে যায়নি। বিএনপি সমালোচনা ও ষড়যন্ত্র করলেও জনগণের মন জয় করতে পারেনি। তাই চট্টগ্রামের জনগণ তাদের থেকে মুখ ফিরিয়ে নিয়েছে। এ কারণে তারা পরাজিত হয়েছে।
আজ বৃহস্পতিবার লক্ষ্মীপুর জেলার সড়ক বিভাগের তিনটি প্রকল্পের নির্মাণকাজের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন। ওবায়দুল কাদের নিজ সরকারি বাসভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে অনুষ্ঠানে যুক্ত হন।
তিনি বলেছেন, ‘চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন নির্বাচনে আওয়ামী লীগ প্রার্থীর জয় শেখ হাসিনার উন্নয়ন ও অর্জনেরই জয়।

এসময় তিনি বিজয়ী মেয়র ও কাউন্সিলরদের অভিনন্দন জানান এবং চট্টগ্রামের জনগণসহ নির্বাচন সংশ্লিষ্ট সকলকে ধন্যবাদ জানান।
ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশব্যাপী উন্নয়নের মহাযজ্ঞ চলছে। তাঁর নেতৃত্বে সমৃদ্ধ আগামী নির্মাণের যে পথচলা, তা এগিয়ে নিতে দলমত নির্বিশেষে সকলকে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে। নিজ নিজ অবস্থান থেকে সততা, কর্মনিষ্ঠা এবং দায়িত্বশীলতার সাথে কাজ করলে সত্যিকার অর্থেই বাংলাদেশ বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলায় রুপান্তর হবে।
দলে শৃঙ্খলা ফেরাতে নেতাকর্মীদের হুঁশিয়ার করে সেতুমন্ত্রী বলেন, ‘দল করলে দলের নিয়ম-শৃঙ্খলা মেনে চলতে হবে। দলের সুনাম নষ্ট হয়, এমন কোনও কাজ যারা করবে তাদের দল থেকে বের করে দেয়া হবে। দশটা উন্নয়ন কাজ ম্লান হয়ে যায় একটা খারাপ কাজের জন্য। কাজেই কাউকে ছাড় দেয়া যাবে না। যে অপরাধ করবে তার বিরুদ্ধে সাথে সাথে সাংগঠনিক ব্যবস্থা নেয়া হবে। শেখ হাসিনাকে অনুসরণ করে সকলকে এগিয়ে যেতে হবে।
বৃহত্তর নোয়াখালীর নেতাকর্মীদের উদ্দেশ্যে আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, ‘রাজনীতিকে সুনামের ধারায় ফিরিয়ে আনতে হবে। নেতাকর্মীদের সততার পতাকা হাতে নিয়ে সততায় সুনামে ফিরে আসতে হবে।
নমিনেশনের জন্য দলের ক্ষতি না করার আহ্বান জানিয়ে সেতুমন্ত্রী বলেন, দলীয় প্রধান শেখ হাসিনার নেতৃত্বের প্রতি শতভাগ আস্থা রাখতে হবে। ঐক্যবদ্ধভাবে মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় দেশ গড়ে তুলতে হবে; বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনার বলিষ্ঠ নেতৃত্বে।
দেশের জনগণকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আহ্বানে সাড়া দিয়ে সংশয়মুক্ত হয়ে এবং কোনও প্রকার অপপ্রচারে কান না দিয়ে করোনার ভ্যাকসিন গ্রহণের আহ্বান জানান সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী।
লক্ষ্মীপুরের প্রায় সকল সড়ক বিভিন্ন উন্নয়ন প্রকল্পের আওতায় আনা হয়েছে উল্লেখ করে সড়ক পরিবহনমন্ত্রী বলেন, লক্ষ্মীপুরের দীর্ঘদিনের স্বপ্ন চৌমুহনী হতে লক্ষ্মীপুর পর্যন্ত মহাসড়ক চার লেনে উন্নীত করতে যাচ্ছে সরকার। এরইমধ্যে নকশা প্রণয়নের কাজ শুরু হয়েছে। কুমিল্লা-লাকসাম-চৌমুহনী চার লেন, ফেনী-নোয়াখালী-সোনাপুর মহাসড়ক চার লেনের কাজও চলমান রয়েছে।
তিনি বলেন, সড়কে শৃঙ্খলা ফিরে না আনলে যতই উন্নয়ন করা হোক না কোনও লাভ হবে না। তাই সড়কে জরুরিভাবে শৃঙ্খলা ফিরিয়ে আনতে হবে। সড়ক নির্মাণে কাজের মান কোনোভাবেই খারাপ করা যাবে না, টেকসই ও মানসম্মত কাজ করতে হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *