টিকার প্রথম ডোজ প্রধানমন্ত্রীকে নেয়ার আহ্বান জাফরুল্লাহর

নিউজ দর্পণ, ঢাকা: উপহার হিসেবে ভারতের পাঠানো করোনা ভাইরাসের ২০ লাখ ডোজ টিকা দেশে পৌঁছে গেছে। জনগণের আস্থা তৈরিতে এবং টিকা নিয়ে প্রশ্ন, সংশয়, উদ্বেগ ও সন্দেহ দূর করতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে জনসমক্ষে টিকার প্রথম ডোজ নেয়ার আহ্বান জানিয়েছেন গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ও ট্রাস্টি ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী।
তিনি সাংবাদিকদের বলেন, ‘টিকাদানের ক্ষেত্রে সরকারের ভুল হচ্ছে। পয়লা টিকা নেয়া উচিত প্রধানমন্ত্রীর। তিনি জনসমক্ষে টেলিভিশনের সামনে টিকা নিলে জনগণের মনে আস্থা জন্মাবে। এছাড়াও প্রত্যেক মন্ত্রীর জেলা শহরে গিয়ে সবার আগে টিকা নেয়া উচিত। এতে টিকার কার্যকারিতা ও পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া নিয়ে জনগণের সন্দেহ ও উদ্বেগ দূর হবে।’
তবে টিকা প্রদানের ক্ষেত্রে অগ্রাধিকার ভিত্তিতে যে পদ্ধতি গ্রহণ করা হয়েছে সেটিকে ‘ঠিক’ বলেই মনে করছেন ডা. জাফরুল্লাহ।
নবনির্বাচিত মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন প্রথম ধাপে ফাইজার-বায়োএনটেকের করোনা ভাইরাসের টিকা নিয়েছেন। এ টিকা নেয়া ‘নিরাপদ’, মার্কিনিদের এ বার্তা পৌঁছে দিতেই নিজে টিকাটির প্রথম ডোজ নিয়েছেন বাইডেন। রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনও টিকা নিতে চলেছেন। সম্প্রতি জনগণের উদ্বেগ ও সন্দেহ দূর করতে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকেও প্রথম ধাপে টিকা নেয়ার আহ্বান জানায় তৃণমূল কংগ্রেসসহ দেশটির বিরোধী দলগুলো।
এদিকে বৃহস্পতিবার (২১ জানুয়ারি) বেলা সাড়ে ১১টার দিকে হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে ভারতের দেয়া উপহারের ২০ লাখ ডোজ টিকা নিয়ে অবতরণ করেছে টিকা বহনকারী এয়ার ইন্ডিয়া চার্টারের একটি বিমান (ফ্লাইট: ১২৩২-২১)। দুটি ফ্রিজার ট্রাকে করে এসব ভ্যাকসিন নিয়ে রাখা হয়েছে তেজগাঁওয়ে ইপিআই স্টোরেজ।
অক্সেফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয় ও অ্যাস্ট্রাজেনেকা কোম্পানির যৌথ উদ্যোগে তৈরি ‘কোভিশিল্ড’ নামের করোনা ভাইরাসের ভ্যাকসিনটি বাজারজাত করছে ভারতের ভ্যাকসিন উৎপাদনকারী প্রতিষ্ঠান সেরাম ইন্সটিটিউট।
গেল ৫ নভেম্বর ‘কোভিশিল্ড’ নামের ওই টিকার ৩ কোটি ডোজ কিনতে সেরামের সঙ্গে চুক্তি করে বাংলাদেশ সরকার। এই ৩ কোটি ডোজ দেশের নাগরিকদের বিনামূল্যে প্রয়োগ করবে সরকার। গত ৪ জানুয়ারি বাংলাদেশের ওষুধ প্রশাসন অধিদফতর এ টিকা আমদানি ও জরুরি ব্যবহারের অনুমোদন দেয়। চুক্তি অনুযায়ী, উপহারের বাইরে ২৫ জানুয়ারির মধ্যে প্রথম ধাপে ভারত থেকে সেরামের ৫০ লাখ ডোজ টিকা বাংলাদেশে আসার কথা রয়েছে।
আগামী ৮ ফেব্রুয়ারি থেকে সারা দেশে একযোগে টিকা দান কর্মযজ্ঞ শুরু হবে বলে আজ সকালে সাংবাদিকদের জানিয়েছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী ডা. জাহিদ মালেক।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *