চীনের গুপ্তচরবৃত্তির অভিযোগে সাবেক মার্কিন গোয়েন্দা কর্মকর্তা গ্রেফতার

নিউজ দর্পণ ডেস্ক: চীনের হয়ে গুপ্তচরবৃত্তির অভিযোগে যুক্তরাষ্ট্রের কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থার সাবেককর্মকর্তা আলেক্সান্ডার ইউক চিং মা (৬৭) কে গ্রেফতার করা হয়েছে। তিনি তার এক আত্মীয়র সঙ্গে মিলে এ কাজে যুক্ত ছিলেন। তার ওই আত্মীয়ও গোয়েন্দা সংস্থার সদস্য ছিলেন।

মার্কিন বিচার বিভাগ জানিয়েছে, শুক্রবার আলেক্সান্ডার ইউক চিং মা (৬৭) গ্রেফতার হয়েছেন। তিনি চীনের গোয়েন্দা কর্মকর্তাদের কাছে জাতীয় প্রতিরক্ষা বিষয়ক গুরুত্বপূর্ণ তথ্য প্রকাশ করেছেন বলে অভিযোগ উঠেছে।

ওয়াশিংটন এবং বেইজিংয়ের মধ্যে সাম্প্রতিক সময়ে চলমান উত্তেজনার মধ্যেই চীনের হয়ে মার্কিন কর্মকর্তার গুপ্তচরবৃত্তির খবর সামনে এলো। ফলে নতুন করে দু’দেশের মধ্যে উত্তেজনা আরও বেড়ে যাওয়ার আশঙ্কা দেখা দিয়েছে।

হংকংয়ে জন্মগ্রহণ করা আলেক্সান্ডার ইউক চিং মা ১৯৮২ সাল থেকে কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থায় কাজ শুরু করেন। প্রসিকিউটররা জানিয়েছেন, যোগ দেওয়ার সাত বছর পর তিনি সিআইএ ছেড়ে দেন। পরে তিনি চীনের সাংহাই শহরে কাজের জন্য চলে যান।

প্রায় এক দশক ধরে আলেক্সান্ডার ইউক চিং মা এবং তার ওই আত্মীয় চীনের হয়ে গুপ্তচরবৃত্তির কাজ করে যাচ্ছেন। সিআইএ কর্মকর্তা, সংস্থাটির অপারেশন এবং বিভিন্ন পদ্ধতি সম্পর্কে গোপন হিসেবে শ্রেণীভুক্ত বিভিন্ন তথ্য চীনের কাছে প্রকাশ করেছেন তারা।

মঙ্গলবার আলেক্সান্ডার ইউক চিং মা’কে আদালতে উপস্থাপনের কথা রয়েছে। তার বিরুদ্ধে যেসব অভিযোগ আনা হয়েছে সেগুলো প্রমাণিত হলে তাকে সর্বোচ্চ যাবজ্জীবন কারাদণ্ড ভোগ করতে হতে পারে।

প্রসিকিউটররা বলছেন, ২০০১ সালে এই গুপ্তচরবৃত্তির সূচনা। সে সময় হংকংয়ে চীনের গোয়েন্দা কর্মকর্তাদের সঙ্গে বৈঠক করেন সিআইএ’র এই সাবেক দুই কর্মকর্তা। তারা গোপন হিসেবে শ্রেণীভুক্ত বিভিন্ন তথ্য ওই চীনা কর্মকর্তাদের কাছে প্রকাশ করেন।

এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, ওই বৈঠকের কিছু অংশের ভিডিও রেকর্ড করে রাখা হয়েছিল। সেখানে দেখা গেছে, চীনা কর্মকর্তাদের কাছ থেকে আলেক্সান্ডার ইয়োক চিং মা ৫০ হাজার ডলার গ্রহণ করছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *