আল-জাজিরার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেবে সরকার: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

নিউজ দর্পণ, ঢাকা: অল দ্য প্রাইম মিনিস্টারস ম্যান’ (All the Prime Minister’s Men) শিরোনামে প্রতিবেদন প্রকাশের জেরে কাতারভিত্তিক সংবাদমাধ্যম আল-জাজিরার বিরুদ্ধে সরকার আইনগত ব্যবস্থা নেবে বলে জানিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. একে আব্দুল মোমেন।
তিনি বলেন, ‘আমরা এই নিউজের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেয়ার চেষ্টা করবো। নিউজে তথ্যগত যে ভুল রয়েছে, সেগুলোর বিরুদ্ধে আমরা অবশ্যই আইনি ব্যবস্থা নেবো।
আজ বুধবার পররাষ্ট্রমন্ত্রী সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে এ কথা বলেন।
তিনি বলেন, অনেকের ধারণা টাকা দিয়ে নিউজ করাচ্ছে। আর তারা ঢোল বাজাচ্ছে। খুবই দুঃখজনক। আল-জাজিরা বিশ্বাস যোগ্যতা হারাচ্ছে। আল-জাজিরার ক্ষমা চাওয়া উচিত। মুসলমান দেশগুলোর দোষ বের করাই হলো আল-জাজিরার দোষ। খুবই দুঃখজনক। আমাদের একজন জামাই এর সঙ্গে যুক্ত হয়েছেন।
পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কখনই বডিগার্ড নিয়োগ করেননি। তার দলের লোকেরাই তার বডিগার্ড।
মিয়ানমারে চলমান পরিস্থিতি প্রসঙ্গে তিনি বলেন, মিয়ানমারের সামরিক শাসন থাকলেও আমরা রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন নিয়ে আলোচনা চালিয়ে যাব। আমরা এখনও রোহিঙ্গা সংকটে চীনের ওপর আস্থা রাখছি। চীনের মাধ্যমে মিয়ানমারের সঙ্গে যোগাযোগ রক্ষা করছে বাংলাদেশ। কারণ, দেশটির সঙ্গে সরাসরি যোগাযোগ করা যাচ্ছে না।
পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, অনেকেই আশঙ্কা করছে মিয়ানমারের বর্তমান পরিস্থিতিতে ওপার থেকে বাংলাদেশে আসতে পারে রোহিঙ্গারা। কিন্তু তাদের গ্রহণ করবে না বাংলাদেশ।
গত সোমবার (১ ফেব্রুয়ারি) রাতে আল-জাজিরায় প্রকাশিত প্রতিবেদনটিকে ‘মিথ্যা ও অবমাননাকর’ হিসেবে বর্ণনা করেছে সরকার। সোমবার রাতে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এক বিবৃতিতে ওই প্রতিবেদনকে লন্ডন ও অন্যান্য জায়গায় সক্রিয় ‘উগ্রপন্থি ও তাদের সহযোগীদের’ উসকানিতে ‘বেপরোয়া ও নোংরা অপপ্রচার’ বলে উল্লেখ করা হয়। আইএসপিআর-এর পক্ষ থেকেও এ প্রতিবেদনকে ‘ভিত্তিহীন ও বিভ্রান্তিমূলক’ বলে আখ্যা দেয়া হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *